প্রতিটা সত্য বলবো, একটু সময় দেন : শিপ্রা

সাবেক মেজর সিনহা মোহাম্মদ রশিদ খান হত্যার ঘটনায় প্রতিটি সত্য বলবেন বলে জানিয়েছেন স্ট্যামফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী শিপ্রা দেবনাথ। এই বিষয়ে কোনো ধরণের গুজবে কান না দেয়ার জন্য অনুরোধও করেন তিনি।
 
১০ আগস্ট, সোমবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে কক্সবাজারে এক সংবাদ সম্মেলনে এই মন্তব্য করেন শিপ্রা। এ সময় স্ট্যামফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী শাহেদুল ইসলাম সিফাতও উপস্থিত ছিলেন।
 
এই কঠিন সময়ে তাদের পাশে থাকার জন্য দেশবাসী ধন্যবাদ দিয়ে শিপ্রা বলেন, ‘প্লিজ, প্রে ফর আস। সিফাত এবং আমি আপনাদের প্রতি অনেক কৃতজ্ঞ। আপনারা আমাদের পাশে ছিলেন, পাশে থাকবেন। আপাতত এতটুকুই বলার আছে। আমরা প্রত্যেকটা কথা বলব। প্রত্যেকটা সত্যি বলব। একটু সময় দেন।’
 
তিনি আরো বলেন, ‘প্রচুর গুজব শোনা যাচ্ছে। আমরা বিভ্রান্তিমূলক নিউজ চাই না।’
 
এ সময় সিফাত বলেন, মানসিকভাবে শারীরিকভাবে আমি সম্পূর্ণ সুস্থ আছি। আমার পায়ে গুলি লাগেনি। আশা করি সুষ্ঠু তদন্ত হবে। আমাদের একটু সময় দেন।
 
এর আগে সোমবার দুপুর সোয়া দুইটার দিকে কক্সবাজার আদালত পৃথক দুটি মামলায় জামিন মঞ্জুরের হলে কারাগার থেকে বের হয়ে আসেন সিফাত। গতকাল রবিবার জামনি পান শিপ্রা।
 
প্রসঙ্গত, গত ৩১ জুলাই টেকনাফে মেরিন ড্রাইভে পুলিশের গুলিতে নিহত হন মেজর সিনহা। এ সময় তার সঙ্গে ছিলেন সিফাত। হত্যার পর পুলিশ সিনহারা যে রিসোর্টে উঠেছিলেন সেখানে তল্লাশি করেন। মদ ও গাঁজা রাখার অভিযোগে শিপ্রাকে গ্রেপ্তারে পুলিশ। তার বিরুদ্ধে মাদক আইনে মামলা করা হয়। আর সিফাতের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা করে পুলিশ।
 
স্টামফোর্ডের শিক্ষার্থী সিফাত, শিপ্রা দেবনাথ ও তাহসিন রিফাত নূর ‘জাস্ট গো’ নামে একটি ভ্রমণের ভিডিওচিত্র ধারণ করতে কক্সবাজারে ছিলেন। নিহত সাবেক মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খানের ইউটিউব চ্যানেলের জন্য এটি নির্মাণ করা হচ্ছিল।

সর্বশেষ সংবাদ

বিশেষ প্রতিবেদন এর আরো খবর