চীনা ভ্যাকসিনের চূড়ান্ত ধাপের ট্রায়াল শুরু আমিরাতে

নভেল করোনাভাইরাস প্রতিরোধী সম্ভাব্য ভ্যাকসিনের তৃতীয় ধাপের ট্রায়াল শুরু হয়েছে সংযুক্ত আরব আমিরাতে। মঙ্গলবার ভিডিও কনফারেন্সের ভার্চুয়াল বৈঠকে বেইজিং এবং আবু ধাবির চিকিৎসকেরা এই কার্যক্রম শুরুর ঘোষণ দেন। পৃথিবীতে এই প্রথম করোনার কোনো ভ্যাকসিনের চূড়ান্ত ধাপের ট্রায়াল শুরু হল।
 
গালফ নিউজ এবং চীনের গ্লোবাল টাইমস জানিয়েছে, এই ট্রায়ালের জন্য চায়না ন্যাশনাল বায়োটেক গ্রুপ (সিএনবিজি) এবং আবু ধাবির গ্রুপ ৪২-এর মধ্যে চুক্তি হয়েছে। আবু ধাবির স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তত্ত্বাবধানে এই কার্যক্রম পরিচালনা করবে গ্রুপ ৪২।
 
ভ্যাকসিনের ট্রায়ালে সাধারণত তিনটি ধাপ অনুসরণ করা হয়।  প্রথম ধাপের চেয়ে দ্বিতীয় এবং তৃতীয় ধাপ বেশি চ্যালেঞ্জিং। এই দুই ধাপে একসঙ্গে অনেক মানুষকে যুক্ত করা হয়। চূড়ান্ত ঝুঁকি এখানেই বোঝা যায়।
 
আমিরাতের স্বাস্থ্যমন্ত্রী আবদুল রহমান মোহাম্মদ আল ওবাইস  বলছেন, ‘এই মুহূর্তে আমাদের বেশি বেশি চুক্তিভিত্তিক কাজ করা দরকার। মহামারী মোকাবিলায় বিশ্বের যেকোনো দেশের এমন পদক্ষেপকে আমরা স্বাগত জানাতে চাই।’
 
চীন ইতিমধ্যে দুটি ভ্যাকসিনের প্রথম দুই ধাপের ট্রায়াল শেষ করেছে। দুটিতেই তারা সফলতা পেয়েছে।
 
সিএনবিজির ভ্যাকসিন প্রথম এবং দ্বিতীয় ধাপে ২৮ দিনে শতভাগ মানুষের শরীরে করোনা প্রতিরোধী অ্যান্টিবডি তৈরি করেছে বলে জানিয়েছে চীন। এই ভ্যাকসিনটি ইতিমধ্যে চীনের সরকারি কর্মকর্তাদের দেয়া শুরু হয়েছে।
 
চীন বলছে চলতি বছরের শেষ দিকে অথবা সামনের বছরের শুরুতে ভ্যাকসিনটি বাজারজাত করা হবে। ইতিমধ্যে দেশটির কর্মকর্তারা কথা দিয়েছেন প্রথম যে দেশগুলো ভ্যাকসিন পাবে,  বাংলাদেশ তার মধ্যে থাকবে।

বিশেষ প্রতিবেদন এর আরো খবর