ইউএস-বাংলার উড়োজাহাজ বিধ্বস্ত : নিহত অন্তত ৫০
খবরের অন্তরালে প্রতিবেদক :

নেপালের রাজধানী কাঠমান্ডুর ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে (টিআইএ) ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের একটি যাত্রীবাহী উড়োজাহাজ বিধ্বস্তের ঘটনায় অন্তত ৫০ জন নিহত হয়েছেন। নেপাল সেনাবাহিনীর মুখপাত্র গকুল ভান্দুরী রয়টার্সকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, এখন পর্যন্ত ৫০টি মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। ৯ জন নিখোঁজ রয়েছেন। তবে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্সের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ইমরান আসিফ তাদের বারিধারা কার্যালয়ে সোমবার সন্ধ্যায় এক ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের বলেন, ‘উড়োজাহাজ বিধ্বস্তের ঘটনায় এ পর্যন্ত ৮ জনের মৃত্যুর কথা নিশ্চিত হওয়া গেছে। ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ফ্লাইট অবতরণ বন্ধ থাকায় ইউএস-বাংলার প্রতিনিধি এখনও সেখানে পৌঁছাতে পারেন নি।’ সোমবার দুপুর ১২টা ৫১ মিনিটে ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ৬৭ জন যাত্রী ও চারজন ক্রু নিয়ে উড়োজাহাজটি ছেড়ে যায়। নেপালের স্থানীয় সময় বেলা ২টা ২০ মিনিটে কাঠমান্ডুতে নামার সময় পাইলট নিয়ন্ত্রণ হারালে উড়োজাজটি রানওয়ে থেকে ছিটকে পড়ে এবং তাতে আগুন ধরে যায়।  দ্য হিমালয়ান টাইমসের খবরে বলা হয়েছে, ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণের সময় বিধ্বস্ত হয়ে উড়োজাহাজটিতে আগুন ধরে যায়। বিমানবন্দর এলাকায় ধোঁয়া দেখা গেছে। দুর্ঘটনার পরপরই উদ্ধার অভিযান শুরু করে বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ। পরে তাতে যোগ দেয় নেপাল সেনাবাহিনী। এদিকে কাঠমান্ডু পোস্ট জানিয়েছে, ইউএস-বাংলার উড়োজাহাজটি দুর্ঘটনায় পড়ার পর ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের সব ধরনের ফ্লাইট বাতিল করা হয়েছে।

সর্বশেষ সংবাদ

বিশেষ প্রতিবেদন এর আরো খবর