সোমবার রাঙামাটি-খাগড়াছড়িতে সকাল সন্ধ্যা হরতাল
খবরের অন্তরালে প্রতিবেদক :

সম্প্রতি খাগড়াছড়িতে সন্ত্রাসীদের হাতে নিহত রবিউল হত্যার বিচার দাবিতে দুই পার্বত্য জেলায় সকাল-সন্ধ্যা হরতাল কর্মসূচী ঘোষণা করেছে, স্থানীয় বাঙালী সংগঠনগুলো। শনিবার পার্বত্য নাগরিক পরিষদের চেয়ারম্যান ইঞ্জিনিয়ার আলকাছ আল মামুন ভূইঁয়া স্বাক্ষরিত্ব গণমাধ্যমকে দেওয়া এক বিবৃতিতে এ কর্মসূচী ঘোষণা করা হয়। এ কর্মসূচীর একমত প্রকাশ করেন- পার্বত্য নাগরিক পরিষদের মহাসচিব এ্যাডভোকেট এয়াকুবআলী চৌধুরী, পার্বত্য বাঙ্গালী ছাত্র পরিষদের কেন্দ্রীয় সভাপতি ইঞ্জিনিয়ার আব্দুল মজিদ এবং কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার সাহাদাৎ ফরাজি সাকিব। পার্বত্য নাগরিক পরিষদের বিবৃতিতে বলা হয়, রাঙামাটি লংগদু উপজেলার নয়নকে ও খাগড়াছড়িতে হত্যা করেছিল উপজাতি সন্ত্রাসীরা। পরে পুলিশ সে হত্যাকারীদের গ্রেফতারও করেছিল। কিন্তু তারপরও সন্ত্রাসীদের শিক্ষা হয়নি। তারা একইভাবে মোটরসাইকেল চালক রবিউলকে হত্যা করে হাত ও মুখ বেঁধে ধান খেতে ফেলে মোটরসাকেল ছিনতাই করে পালিয়ে যায়। এসব ঘটনা বিশেষ করে খাগড়াছড়ি জেলা উদ্বেগজনক হারে বৃদ্ধি পাচ্ছে। তাই একটা সুস্থ সমাধান হওয়া উচিত। যাতে অসহায় সাধারণ মোটরসাইকেল চালকরা সন্ত্রাসীদের থেকে নিরাপদে থাকতে পারে। পার্বত্য বাঙালী ছাত্র পরিষদের রাঙামাটি জেলা শাখার আহবায়ক মো. জাহাঙ্গীর আলম জানান, রবিউল হত্যাকান্ডের সাথে জড়িতদের দ্রুত গ্রেফতার পূর্বক কঠিন শাস্তির দাবীতে মূলত এ হরতাল কর্মসূচী ঘোষণা করা হয়েছে। তবে হরতালের মাধ্যমে আমরা অপহৃত ফাতেমাকে উদ্ধার ও খাগড়াছড়িতে প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ পরীক্ষা বাতিল এবং পার্বত্য বাঙালী ছাত্র পরিষদের ৮ দফা বাস্তবায়নের দাবীও জানিয়েছি। এসব দাবি পুরোনের জন্য ৪৮ ঘণ্টা আল্টিমেটাম দেওয়া হয়েছে। অন্যথায় আরও কঠোর কর্মসূচী ঘোষণা করা হবে।

সংগঠন এর আরো খবর