করোনার টিকাদান কার্যক্রম উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী

দেশে করোনাভাইরাসের পরীক্ষামূলক টিকাদান কার্যক্রমের উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বুধবার বিকেল সাড়ে ৩টায় ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বহুল প্রত্যাশিত এই কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন তিনি। উদ্বোধনের পরপরই নিবন্ধনের জন্য অনলাইন 'সুরক্ষা প্ল্যাটফর্ম' খুলে দেওয়া হয়।
 
প্রথম টিকা নেন রাজধানীর কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালের সিনিয়র স্টাফ নার্স রুনু ভেরোনিকা কস্তা। টিকা নিয়ে তিনি বলেন ‘জয় বাংলা’।
 
অনুষ্ঠানে প্রথম পাঁচজনকে টিকা দেওয়া দেখেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, শিগগিরই সারাদেশে টিকা দেওয়া শুরু হবে, যাতে দেশের মানুষ করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে সুরক্ষা পায়।
 
প্রধানমন্ত্রী প্রথম টিকা দেওয়ার দৃশ্য ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে প্রত্যক্ষ করেন।
 
প্রথম টিকা নেওয়া বাকি চারজন হলেন, কুর্মিটোলা হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. আহমেদ লুৎফুল মোবেন, স্বাস্থ অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা, মতিঝিল বিভাগের ট্রাফিক পুলিশ সদস্য মো. দিদারুল ইসলাম এবং বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ব্রিগেডিয়ার জেনারেল এম ইমরান হামিদ।
 
টিকাদান কার্যক্রম উদ্বোধনের পর প্রথম পর্যায়ে নির্বাচিত ১০০ জনকে পাঁচটি হাসপাতালে টিকা দেওয়া হবে বলে জানা গেছে। এছাড়া দেশব্যাপী গণটিকাদান কার্যক্রম শুরু হবে আগামী ৭ ফেব্রুয়ারি।
 
এর আগে মঙ্গলবার ভারত থেকে কেনা অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার ৫০ লাখ ডোজ টিকার অনুমোদন দেয় ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তর। দেশব্যাপী টিকা দেওয়ার জন্যও বিস্তারিত পরিকল্পনা করেছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর।

সর্বশেষ সংবাদ

জাতীয় এর আরো খবর