৯৯ বছর বয়সে সাঁতারে বিশ্বরেকর্ড

জীবনে কিছু করতে বয়স আসলে কোনো বাধা নয়। সেটা প্রমাণ করলেন জর্জ করোনেস। বয়স ১০০ ছুঁইছুঁই। এ বয়সে মানুষের ঠিকভাবে হাঁটতে পারারও কথা না। কিন্তু প্রবল ইচ্ছাশক্তি আর আত্মবিশ্বাসের দরুণ ৯৯ বছর বয়সও তাকে দমাতে পারেনি। বয়সভিত্তিক সাঁতারে বিশ্বরেকর্ড গড়েছেন ৯৯ বছর বয়সী অস্ট্রেলিয়ার এই সাঁতারু।

গত বুধবার রাতে দারুণ এক বিশ্বরেকর্ডের সাক্ষী হলো কমনওয়েলথ গেমসের সুইমিং ট্রেইলসে উপস্থিত লোকজন। বয়স ৯৯ হলেও ১০০-১০৪ বছরের সাতারুদের গ্রুপে একমাত্র প্রতিযোগী ছিলেন জর্জ করোনেস। সাঁতারে তিনি ৫০ মিটার ফ্রিস্টাইল ৫৬.১২ সেকেন্ডে শেষ করেন। করোনেস এ পথে পেছনে ফেললেন ২০১৪ সালে ব্রিটিশ সাঁতারু জন হ্যারিসনের গড়া রেকর্ড।

কমনওয়েলথ গেমস সাঁতারের এই বাছাইপর্বে হ্যারিসনের চেয়ে ৩৫ সেকেন্ড সময় কম নেন করোনেস। কিন্তু করোনেসের রেকর্ড গ্রহণ করা হবে কিনা সে বিষয়ে কর্তৃপক্ষ সিদ্ধান্ত নেবে। তবে বিবিসি জানিয়েছে, ১০০ থেকে ১০৪ বছরের বয়সভিত্তিক সাঁতারে করোনেস রেকর্ডটির যোগ্য। কারণ আগামী মাসেই তিনি ১০০ বছরে পা দেবেন।

করোনেস তার যৌবনে সাঁতার পছন্দ করলেও দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের আগে ছেড়ে দিয়েছিলেন। মানে, তিনি পেশাদার ছিলেন না। শরীর ঠিক রাখতে শুধু ব্যায়াম করতে সাঁতার শুরু করেন ৮০ বছর বয়সে!

বিশ্বরেকর্ড গড়া নিয়ে তাঁর ভাষ্য, এটা ছিলো উদাহরণ সৃষ্টি করার প্রতিযোগিতা। আমিও প্রস্তুত ছিলাম। এই বয়সে গতি তুলতে কিছুটা সময় লাগে। কিন্তু একটু বুদ্ধি খাটালেই অবিশ্বাস্য ফল পাওয়া যায়।

তবে করোনেস এখানেই থামছেন না। আগামীকাল শনিবার তিনি ১০০ মিটার ফ্রিস্টাইল সাঁতারে বিশ্বরেকর্ড গড়ার লক্ষ্যে পুলে নামবেন। হ্যারিসনের দখলে থাকা এই রেকর্ডটিও নিজের করে নেওয়ার লক্ষ্যে করোনেসের উক্তি, তারুণ্য পেছনে ফেলে এসেছি। কিন্তু আমি এটা অর্জন করতে চাই।

আন্তর্জাতিক এর আরো খবর