দেশে ফিরলেন আমিরাতে আটকে পড়া ১৬০ বাংলাদেশি

করোনাভাইরাস (কভিড-১৯) মহামারীর প্রাদুর্ভাবের কারণে সংযুক্ত আরব আমিরাতে আটকে পড়া ১৬০ প্রবাসী বাংলাদেশিকে ফিরিয়ে আনলো ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স এর একটি বিশেষ ফ্লাইট।
 
সোমবার সকাল ১০টা ৫৮ মিনিটে ঢাকার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ফ্লাইটটি অবতরণ করে।
 
ইউএস-বাংলার জেনারেল ম্যানেজার কামরুল ইসলাম দেশ রূপান্তরকে বলেন, সোমবার দুবাই থেকে স্থানীয় সময় ভোর ৪টায় একজন শিশুসহ ১৬০ জন যাত্রী নিয়ে ঢাকার উদ্দেশে বিশেষ ফ্লাইটটি উড্ডয়ন করে।
 
দুবাইয়ে আটকে পড়া প্রবাসী বাংলাদেশিদের দেশে ফিরিয়ে আনার সুবিধার্থে বাংলাদেশ বিমান বাহিনী ওয়েলফেয়ার ট্রাস্টের তত্ত্বাবধানে ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স বিশেষ ফ্লাইটটি পরিচালনা করেছে।
 
দুবাই-ঢাকা রুটে ইউএস-বাংলার বোয়িং ৭৩৭-৮০০ এয়ারক্রাফট দিয়ে বিশেষ ফ্লাইটটি পরিচালনা করা হয়।
 
দুবাই থেকে প্রত্যেক যাত্রী করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট নিয়ে ভ্রমণ করে জানিয়ে কামরুল ইসলাম বলেন, স্বাস্থ্যবিধির নির্দেশনা অনুযায়ী প্রত্যেক যাত্রীর সঙ্গে ২ জোড়া ডিসপোসিবল গ্লভস এবং মাস্ক রাখার বাধ্যবাধকতাও ছিল।
 
কভিড-১৯ এর প্রাদুর্ভাবের কারণে গত তিন মাসের অধিক সময় সংযুক্ত আরব আমিরাতের বিভিন্ন শহরে আটকে ছিলেন বহু সংখ্যক প্রবাসী বাংলাদেশি। আকাশপথে যোগাযোগ বন্ধ হয়ে যাওয়ায় কোনোভাবেই দেশে ফিরতে পারছিলেন না।
 
এ অবস্থায় বাংলাদেশ ও আমিরাত সরকারের মধ্যস্থতায় দুবাই থেকে বাংলাদেশি যাত্রীদের ফিরিয়ে আনতে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দেয় ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স।
 
প্রথমবারের মতো ইউএস-বাংলা এয়ারলাইন্স সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাইয়ে বিশেষ ফ্লাইট পরিচালনা করে।

প্রবাস খবর এর আরো খবর