বয়স্কদের দেহেও অক্সফোর্ডের টিকা ‘কার্যকরী’

বয়স্ক মানুষের দেহে অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের করোনাভাইরাসের টিকা কার্যকরী বলে জানিয়েছেন গবেষকেরা।
 
ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির খবরে বলা হয়েছে, বৃহস্পতিবার বিজ্ঞানবিষয়ক সাময়িকী ‘দ্য ল্যানসেট’-এ অক্সফোর্ডের টিকার দ্বিতীয় ধাপের পরীক্ষার ফল প্রকাশিত হয়েছে। তাতে দেখা গেছে, ৬০ থেকে ৭০ বছর বয়সীদের দেহেও এই টিকার রোগ প্রতিরোধসংক্রান্ত প্রতিক্রিয়া ভালো।
 
দ্বিতীয় ধাপে মোট ৫৬০ জন প্রাপ্তবয়স্ক স্বেচ্ছাসেবীর দেহে এই টিকার পরীক্ষামূলক প্রয়োগ করা হয়। তাতেই এই ফলাফল দেখা গেছে।
 
গবেষকেরা বলছেন, তৃতীয় ধাপে অক্সফোর্ডের টিকা আরও বড় পরিসরে এবং আরও বেশি মানুষের দেহে পরীক্ষামূলক প্রয়োগ করা হচ্ছে। অক্সফোর্ড ভ্যাকসিন গ্রুপের বরাতে বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, এই টিকা রোগের বিস্তার থামাতে পারবে কি না, তা জানা যাবে খ্রিষ্টানদের ধর্মীয় উৎসব বড়দিনের (২৫ ডিসেম্বর) মধ্যেই।
 
‘ল্যানসেট’-এ অক্সফোর্ডের টিকার যে ফল প্রকাশিত হয়েছে, সেগুলো প্রাথমিক পর্যায়ের। এ ধাপে মূলত টিকাটি মানবদেহের জন্য কতটা নিরাপদ এবং মানুষের দেহ কীভাবে এতে সাড়া দিচ্ছে, তা নির্ণয় করে।
 
অক্সফোর্ডের টিকার আগে সম্প্রতি আরও তিনটি টিকার অগ্রগতি সম্পর্কে জানা গেছে। এগুলো হলো ফাইজার-বায়োএনটেক, স্পুটনিক ও মডার্না। ফাইজারের তৈরি করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) টিকা ৯৫ শতাংশ পর্যন্ত কার্যকর বলে দাবি করা হয়েছে।
 
অন্যদিকে যুক্তরাষ্ট্রের আরেক বহুজাতিক ওষুধ কোম্পানি মডার্না ইনকরপোরেশন গত সোমবার জানায়, তাদের তৈরি টিকা করোনা ঠেকাতে ৯৪ দশমিক ৫ শতাংশ কার্যকর। আর রাশিয়ার দাবি, তাদের তৈরি স্পুটনিক টিকার কার্যকারিতা ৯০ শতাংশের বেশি।

আইন আদালত এর আরো খবর